জনসভায় এলো ৭ দফা, তফসিলের আগেই পূরণের দাবি

বিএনপির নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে আগামী দিনের কর্মসূচিতে অংশ নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেছেন, খালেদা জিয়া আমাদের বলেছেন, সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। ঐক্যবদ্ধ হয়ে এ দানব সরকারকে ক্ষমতা থেকে সরাতে হবে। কারণ ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন ছাড়া মুক্তির কোনো উপায় নেই।

আজ রোববার বিকেলে রাজধানীর ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আয়োজিত বিএনপির জনসভায় এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

জনসভায় দলের পক্ষে সাত দফা দাবি তুলে ধরেন মির্জা ফখরুল। ওই দাবিগুলো আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগেই মেনে নেওয়ার জন্য সরকারের কাছে দাবি জানিয়েছেন তিনি। দাবি আদায়ে আগামী ৩ অক্টোবর সারা দেশের জেলায় জেলায় সমাবেশ করা হবে ও জেলা প্রশাসকদের স্মারকলিপি দেওয়া হবে। ৪ অক্টোবর দেশের মহানগরগুলোতে সমাবেশ ও বিভাগীয় কমিশনারের কাছে স্মারকলিপি দেওয়া হবে।

বিএনপির মহাসচিব বলেন, আমরা আমাদের কর্মসূচি শুরু করতে চাই। কারণ এ সরকার আমাদের দেশ, জাতি, সমাজ ও গণতন্ত্রকে শেষ করে দিয়েছে। তাই এ সরকারের বিরুদ্ধে আমাদের আন্দোলনের কর্মসূচি ঘোষণা করব। আগামী দিনে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে রাজপথে আন্দোলনের কর্মসূচি সফল করতে হবে।

সরকার ও পুলিশের উদ্দেশে মির্জা ফখরুল বলেন, একবার চিন্তা করেছেন যেভাবে মামলা দিচ্ছেন তদন্ত হলে তখন কি জবাব দিবেন? সব কিছুর জবাব দিতে হবে। এ সরকারের নিস্তার নেই, তাদের সব অপশাসনের জবাব দিতে হবে। আসলে সরকার ভয় পেয়েছে। আর সে জন্য মামলা দিয়ে ভয় দেখাচ্ছে। আওয়ামী লীগ রাতে দুঃস্বপ্ন দেখে খালেদা জিয়া, তারেক রহমান বলে বলে ভয়ে চিৎকার করে ওঠে। তাই ভয়ের কারণে বলে সবকিছুতে বিএনপির ষড়যন্ত্র করে।

বিএনপির মহাসচিব বলেন, কারাগারে বন্দি খালেদা জিয়া আমাদের সামনে নেই। কিন্তু তাঁর খালি চেয়ার আমাদের সামনে আছে। খালেদা জিয়া আমাদের চোখের সামনে না থাকলেও তিনি আমাদের হৃদয়ের মাঝে আছেন।