মধ্যরাতে টাইমস স্কয়ার জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু স্লোগানে প্রকম্পিত

জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু স্লোগানে প্রকম্পিত হয়েছে বিশ্বখ্যাত টাইমস স্কয়ার। যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় মধ্যরাত অর্থাৎ জাতীয় শোক দিবসের প্রথম প্রহরে টাইমস স্কয়ারের বিলবোর্ডে বঙ্গবন্ধুর ছবি ভেসে ওঠার সঙ্গে সঙ্গে উৎফুল্ল প্রবাসীরা সমস্বরে স্লোগান দিতে থাকেন।

এতে অংশ নেন ওয়াশিংটনে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এম শহীদুল ইসলাম, জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা, কনসাল জেনারেল সাদিয়া ফয়জুননেসা। একাত্তরের ৭ মার্চ রেসকোর্স ময়দানে ১৮ মিনিটের জাদুকরী সেই ভাষণের অংশবিশেষ ধ্বনিত হয় বিলবোর্ডে। থমকে দাঁড়ায় আলোঝলমল টাইমস স্কোয়ার। এ বিশ্ববরেণ্য নেতার বক্তব্যসংবলিত সেই ভিডিও প্রতি ২ মিনিট অন্তর বিলবোর্ডে প্রদর্শিত হয় ১৫ সেকেন্ড করে। জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে প্রবাসী বাংলাদেশি ফাহিম ফিরোজের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান ‘নিউইয়র্ক ড্রিমস’ এ কর্মসূচি গ্রহণ করে। এতে সর্বাত্মক সহায়তা দেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে এ মোমেন। বাংলাদেশের বেশকটি ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান এগিয়ে আসে স্পন্সর হিসেবে। বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী এবং মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে যুক্তরাষ্ট্র তথা উত্তর আমেরিকায় এটাই বড় ধরনের একটি কর্মসূচি। জাতীয় শোক দিবসের শেষ প্রহর পর্যন্ত এ প্রদর্শনী অব্যাহত থাকে। এ উপলক্ষে টাইমস স্কয়ারে যুক্তরাষ্ট্র বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের বঙ্গবন্ধুর ঘাতক হিসেবে দন্ডিত রাশেদ চৌধুরীকে অবিলম্বে দেশটি থেকে বহিষ্কার দাবিতে একটি ব্যানারও ছিল।